বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৩:৫৫ পূর্বাহ্ন
Title :
কুড়িগ্রামে বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টির জন্য সালাতুল ইসতিসকার নামাজ ও দোয়া অনুষ্ঠিত>৭১বার্তা বেরোবির একাউন্টিং এন্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস্ বিভাগের বিভাগীয় প্রধান উমর ফারুক> ৭১বার্তা কুড়িগ্রামে আবিষ্কৃত টেলিস্কোপ দেখতে মানুষের ভিড়> ৭১বার্তা লিবিয়াতে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালিত> ৭১বার্তা কুড়িগ্রামে পুকুরে ডুবে দুই শিশুর মৃত্যু> ৭১বার্তা ফুলবাড়ীতে অবহিতকরণ কর্মশালা> ৭১বার্তা চিলমারীর ব্রহ্মপুত্রের তীরে অষ্টমী স্নানে লাখো হিন্দু সম্প্রদায়ের ঢল > ৭১বার্তা বাস-পিকআপে সংঘর্ষে ফরিদপুরে ১১জন নিহত> ৭১বার্তা লিবিয়াতে বৈশাখী উৎসব পালিত > ৭১বার্তা লঞ্চের ধাক্কায় সদরঘাটে পাঁচ জনের মৃত্যু > ৭১বার্তা

শীতে কাঁপছে উত্তরের সীমান্ত জনপদ- ৭১বার্তা

পঞ্চগড় প্রতিনিধি : মো: রাশেদুজ্জামান রাশেদ:
  • আপডেট সময় : সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ৯১ বার পঠিত

ঘন কুয়াশার জালে উত্তরের শীতপ্রবণ সীমান্তবর্তী উপজেলা তেঁতুলিয়া। গত দুদিন ধরে ঘন কুয়াশার জালে আবৃত রয়েছে এ অঞ্চলটি। হিমেল হাওয়া প্রবাহিত হওয়ায় নেমেছে তাপমাত্রার পারদ। সোমবার তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ১৩ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গতকাল রোববার রেকর্ড হয়েছিল ১৩ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আবহাওয়ার জানিয়েছেন প্রথম শ্রেণির তেঁতুলিয়া আবহাওয়া অধিদপ্তর।

বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে দেখা যায়, ঘন কুয়াশায় ঢাকা উপজেলার প্রকৃতি। শহর ও গ্রামীণ সড়কগুলোতে যানবাহনগুলোকে হেডলাইট জ্বালিয়ে চলতে দেখা গেছে। প্রয়োজনের বাইরে অনেকে ঘর থেকে বের হ”েছন না। তবে শীত উপেক্ষা করে সকালে চা শ্রমিক, পাথর শ্রমিকসহ বিভিন্ন নিম্নআয়ের মানুষদের জীবিকার তাগিদে কাজে যেতে দেখা গেছে। দুপুর বেলা বাড়লেও থেকে যায় কুয়াশা। দুপুরে সূর্যের মুখ দেখা গেলে সে রোদে মিলছে না কোন উষ্ণতা। বিকেল গড়ালেই শুরু হয় ঠান্ডা বাতাস। সন্ধ্যার পর শহরে হাটবাজারগুলোও জনশুন্য হয়ে পড়ে কুয়াশা ঝরার কারণে। অনেকে টায়ার-কাগজে আগুন লাগিয়ে শীত নিবারণ করতে দেখা যায়।

গ্রামীণ নারীরা জানান, গত দুদিন থেকেই ঠান্ডা বেশি মনে হ”েছ। রাত থেকে সকাল পর্যন্ত ঘন কুয়াশায় ঢেকে থাকে চারপাশ। ঘরের টিনের চালে বৃষ্টির ফোটার মতো শিশির ঝরা শব্দ শোনা যায়। ঘরের মেঝে থেকে শুরু করে আসবাপত্র পর্যন্ত বরফ হয়ে উঠে। সকালে গৃহ¯’ালী করতে গিয়ে কনকনে ঠান্ডায় হাত-পা অবশ হয়ে আসে।
চা শ্রমিক আরশেদ আলী, মোস্তফা ও সাইফুলসহ কয়েকজন জানান, ভোরে প্রচন্ড হিমশীতের মধ্যেই তারা চা বাগানে পাতা তুলতে কাজ করছি। কুয়াশা আর হিমেল শিশিরের কারণে হাত-পা অবশ হয়ে আসছে। কিš‘ কী করবো, জীবিকার তাগিদে কাজ করতে হ”েছ। একই কথা বলেন নদীতে পাথর তুলতে যাওয়া শ্রমিকরা।
কয়েকজন ভ্যানচালক বলেন, এ মৌসুমে মনে হ”েছ আজকেই বেশি কুয়াশা আর ঠান্ডা। শীতের কারণে সহজে ভ্যানে চড়তে চান না অনেকেই। সকালে বেড়িয়েছি, কিš‘ কোনো ভাড়া মারতে পারিনি।

এদিকে শীতের কারণে বাড়তে শুরু করে বিভিন্ন শীতজনিত রোগ ব্যাধি। জেলা ও উপজেলার হাসপাতালগুলোতে আউটডোরে ঠান্ডাজনিত রোগী বাড়তে শুরু করেছে। চিকিৎকরা চিকিৎসরা পাশাপাশি শীতজনিত রোগ থেকে নিরাময় থাকতে বিভিন্ন পরামর্শ প্রদান করছেন।

তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. রাসেল শাহ জানান, গত দুদিন ধরে তাপমাত্রা কমে বেশ ঠান্ডা পড়েছে। আজ সোমবার সকাল ৯টায় তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ১৩ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। ভোর ৬টায় একই তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। গতকাল রোববার সকাল ৯টায় তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ১৩ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। হিমেল হাওয়া প্রবাহিত হওয়ার কারণে শীত অনুভূত হ”েছ। সামনে তাপমাত্রা আরও কমে আসবে বলে তিনি জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো কিছু জনপ্রিয় সংবাদ
© All rights reserved © 2023 71barta.com
Design & Development BY Hostitbd.Com