শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ০২:৪৯ পূর্বাহ্ন
Title :
ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভূমিহীন পরিবারকে জমিসহ গৃহ হস্তান্তর>৭১বার্তা ডাকাতের হাতে রংপুরে গৃহবধূ হত্যা,৪মাস পর প্রধান আসামি গ্রেপ্তার > ৭১বার্তা সুন্দরগঞ্জে ভূমি সেবা সপ্তাহের উদ্বোধন> ৭১বার্তা সুন্দরগঞ্জ প্রেসক্লাবের ৪১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত> ৭১বার্তা ফুলবাড়িতে উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন এজহার আলী>৭১বার্তা প্রত্যেকটি নাগরিক যেন রাষ্ট্রের কাছে ন্যায়বিচার পায়, বললেন প্রধান বিচারপতি> ৭১বার্তা ফুলবাড়ীতে আমনধান সংগ্রহে কৃষক নির্বাচন লটারী অনুষ্ঠিত> ৭১বার্তা রংপুরে ৩ জঙ্গির পৃথক মেয়াদে সাজা> ৭১বার্তা ২১ মে কুড়িগ্রাম জেলার ৩টি উপজেলা পরিষদের নির্বাচন> ৭১বার্তা বেরোবিতে স্কলারশীপ সাপোর্ট অফিসের উদ্বোধন>৭১বার্তা

বাংলাদেশ ব্যাংকে সাংবাদিকদের প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধ গণবিরোধী, বললেন জিএম কাদের> ৭১বার্তা

মোস্তাফিজার বাবলু
  • আপডেট সময় : রবিবার, ১৯ মে, ২০২৪
  • ৪২ বার পঠিত

রোববার দুপুরে রংপুর সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় কালে এসব কথা বলেন জাপা চেয়ারম্যান জিএম কাদের।

এর আগে দুপুরে জিএম কাদের ঢাকা থেকে বিমানযোগে সৈয়দপুর বিমান বন্দরে যান। সেখান থেকে সরাসরি রংপুর সার্কিট হাউজে পৌঁছান। সেখানে জেলা প্রশাসক মোবাস্বের হাসান, পুলিশ সুপার ফেরদৌস আলম চৌধুরী, মহানগর জাপার সাধারণ সম্পাদক এস এম ইয়াসির, জেলা সভাপতি আলাউদ্দিন মিয়াসহ প্রশাসনের ও পার্টির নেতাকর্মীরা তাকে ফুল দিয়ে স্বাগত জানান।

পরে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে জিএম কাদের বলেন, সামনে অর্থনৈতিক সংকটের কারণে ভয়াবহ অবস্থার সৃষ্টি হতে পারে। দেশের রিজার্ভ এখন ১৩ বিলিয়ন ডলারের নিচে নেমে এসেছে, যা এ যাবৎ কালের সর্বনিম্ন। এখন বলা হয় ৩ মাসের আমদানি করার মতো অর্থ থাকলেই নাকি যথেষ্ট। কিন্তু আমরা যতটুকু জানি আমদানি ব্যয় আগের তুলনায় অনেক কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। এখন ৭/৮ মিলিয়নের জায়গায় ৪/৫ মিলিয়নে নেমে এসেছে।

তিনি আরও বলেন, সরকার যতই রির্জাভের কথা বলুক আসলে ১০ বিলিয়ন ডলারই আছে বলে আমার মনে হয় না। এসব আমাদের জন্য অশুভ সংকেত। দেশে টাকা নেই প্রতিদিন রিজার্ভ কমে যাচ্ছে। দেশে বিনিয়োগ আসছে না। যে অর্থ আসে তা বিদেশে চলে যাচ্ছে। ফলে ডলারের এবং দেশীয় টাকার চরম অবমূল্যায়ন হচ্ছে। দিন দিন টাকার ভ্যালু কমে যাচ্ছে।

জিএম কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ অনেক বড় বড় কথা বলে। দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে আমি রেসপেক্ট করি। কিন্তু তিনি যেসব কথা বলছেন এটা জনগণ আর বিশ্বাস করে না। আওয়ামী লীগ আগে জনগণকে ধারণ করলেও এখন তারা জনগণের ঘাড়ে চেপে বসেছে। আগে আওয়ামী লীগ একটা গাছের মতো ছিল। জনগণ যেখানে বিশ্রাম নিতো। এখন সেটা পরগাছা হয়ে গেছে। তারা দেশের জনগণ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো কিছু জনপ্রিয় সংবাদ
© All rights reserved © 2023 71barta.com
Design & Development BY Hostitbd.Com